২০শে অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বুধবার

তালতলীতে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকে একজনের নামের ঋন অন্যজনে তুলে নেয়ার অভিযোগ

আপডেট: সেপ্টেম্বর ২১, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

মংচিন থান, তালতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি॥ বরগুনার তালতলীতে পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকে আমার বাড়ি আমার খামার প্রকল্পের বড়বগী ইউনিয়নে ঋন বিতরনে ৫জন সদস্যদের স্বাক্ষর জাল করে অপরজনে টাকা তুলে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার বড়বগী ইউনিয়নের ছোটভাইজোড়া মডেল গ্রাম উন্নয়ন সমিতির সদস্য মোঃ রিয়াজ ও রেকসনা জীবিকা নির্বাহের জন্য চট্টগ্রামে থাকেন। সদস্য কাওসার বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরে। ওই সমিতির মান্নান ও সালমা এলাকায় থাকলেও তাদের স্বাক্ষর জালিয়াতি করে সমিতির ম্যানেজার বেল্লাল হোসেন, সমিতির ফিল্ড সুপারভাইজার সফিকুল ইসলাম ও শাখা ব্যবস্থাপক এম.এ সিদ্দিকের সহায়তায় ঋন টাকা তুলে অন্যজনে নেয়ার অভিযোগ পাওয়া গেছে।
চলতি মাসের ৭ তারিখে রিয়াজের স্বাক্ষরে ২০হাজার টাকা ঋন দেখানো হয়েছে। এব্যাপারে রিয়াজ জানান, জীবিকা নির্বাহের জন্য সে চট্টগ্রামে রিক্সা চালায়। পল্লী সঞ্চয় ব্যাংকে আমার বাড়ি আমার খামার প্রকল্পের বড়বগী ইউনিয়নের ছোটভাইজোড়া মডেল গ্রাম উন্নয়ন সমিতির সদস্য। সে এ ঋন গ্রহন করেনি এবং ব্যাপারে কিছু জানেননা। এ ছাড়াও সদস্য রেকসনা চট্টগ্রামের একটি গার্মেন্টসে কাজ করে। অফিস লেজারে ওই তারিখে তার নামে ঋন দেখানো হয়েছে। অথচ সে তখন ছিল চট্টগ্রামে।
এব্যাপারে সমিতির ম্যানেজার বেল্লাল হোসেন ও ফিল্ড সুপারভাইজার সফিকুল ইসলামের সাথে ফোনে যোগাযোগ করার চেষ্টা করলেও তারা মোবাইল ফোনে কোন কথা বলতে রাজি নন। তবে শাখা ব্যবস্থাপক এম.এ সিদ্দিক জানান, সদস্যদের নামে বৈধভাবে ঋন পাশ হয়েছে। ঋন গ্রহীতার অনুপস্থিতে তার ঋনের টাকা অন্যজনে নিতে পারবেন। স্বাক্ষরের ব্যাপারে জানতে চাইলে তিনি বিষয়টি এরিয়ে যান এবং বলেন সদস্যরা আগে এসে স্বাক্ষর দিয়েছিলেন ।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
   
Website Design and Developed By Engineer BD Network