২৫শে ফেব্রুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার

 

পিরোজপুরে স্ত্রী হত্যার দায়ে স্বামীর ফাঁসির রায়

আপডেট: নভেম্বর ৬, ২০১৯

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

পিরোজপুরে স্ত্রী আসমা বেগম (২৬) কে গলা কেটে হত্যার দায়ে স্বামী মো. রেজাউল মোড়ল (৪০)কে ফাঁসির রায় দিয়েছেন আদালত। গতকাল বুধবার দুপুরে জেলা ও দায়রা জজ মো. আব্দুল মান্নান আসামির উপস্থিতিতে এ রায় প্রদান করেন। ফাঁসির দÐাদেশপ্রাপ্ত রেজাউল মোড়ল খুলনা জেলার ডুমুরিয়া উপজেলার মালতিয়া গ্রামের মো. আ: কাশেমের পুত্র। আর নিহত স্ত্রী আসমা বেগম সাতÿীরা জেলার তালা উপজেলার শোভাশেনী গ্রামের মো. শাহজাহান মোড়লের কন্যা। তারা স্বামী-স্ত্রী শহরের মাছিমপুরের বলাকা ক্লাব সংলগ্ন গাজীবাড়ি রোডের রুবেল তালুকদারের বসত ঘরের উত্তর পাশের অংশে ভাড়াটিয়া হিসাবে থেকে স্থানীয় খাল কাটার শ্রমিক হিসাবে কাজ করতেন। আর স্ত্রী অন্য শ্রমিকদের খাবার রান্না করে দিতেন। আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০১৬ সালের ২২ ডিসেম্বর রাত ১১টার দিকে আসামি মো. রেজাউল খাবার খেয়ে স্ত্রীকে নিয়ে ঘুমিয়ে পড়েন। পরদিন সকালে তাদের ঘরে খাবার খেতে আসা শ্রমিক আলমগীর তাদের কোন সাড়াশব্দ না পেয়ে ঘরের দরজা দিয়ে উঁকি মেরে দেখেন ঘরের মেঝেতে রক্তাক্ত অবস্থায় গৃহবধূর লাশ পড়ে আছে। পরে ঘরের মালিকের স্ত্রী রূপা বেগমকে সাথে নিয়ে ঘরে ঢুকে দেখতে পান গৃহবধূর গলাকাটা লাশ। পরে স্থানীয়রা থানা পুলিশে খবর দিলে লাশ উদ্ধার করে মর্গে প্রেরণ করা হয়। ওই রাত থেকে পরদিন সকালের মধ্যে কোন এক সময় স্বামী রেজাউল স্ত্রীকে গলাকেটে হত্যা করে পালিয়ে যান। মামলা সূত্রে আরো জানা গেছে, স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে ঝগড়া বিবাদ লেগে থাকতো। কিন্তু এ হত্যাকাÐের ২ মাস আগে তারা তাদের নিজ এলাকা থেকে পিরোজপুর শহরে এসে ওই বাড়িতে ভাড়ায় থাকতেন। এ ঘটনায় নিহতের পিতা মো. শাহজাহান মোড়ল বাদী হয়ে পিরোজপুর সদর থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। দীর্ঘ শুনানি শেষে আসামির উপস্থিতিতে বিচারক এ রায় প্রদান করেন।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
 
Website Design and Developed By Engineer BD Network