২০শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং, রবিবার

 

বানারীপাড়ায় পৌর মেয়র করোনা জয় করে কর্মস্থলে যোগদান

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১৬, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বানারীপাড়া প্রতিনিধি
বরিশালের বানারীপাড়ায় করোনা প্রতিরোধে মাঠ পর্যায়ের ফ্রন্ট লাইনার হিসেবে কাজ করা পৌর মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সুভাষ চন্দ্র শীল করোনা জয় বরে কর্মস্থলে যোগদান করেছেন। সোমবার বিকেলে তিনি বানারীপাড়া পৌর সভায় যোগদান করেণ।
এসময় প্যানেল মেয়র এস.এম আকবর হোসেন ও প্যানেল মেয়র-২ মনির হোসেন, পৌর সচিব সাহিন আকতার ও ৯টি ওয়ার্ডের কাউন্সিলর, প্রেস ক্লাব, পৌর শ্রমিক লীগ, মাহিন্দ্রা-আলফা শ্রমিক ইউনিয়ন ও মালিক সমিতির নেতৃবৃন্দ তাকে ফুল দিয়ে বরণ করে নেন।
জানা গেছে, ১৫ মার্চ থেকে সরকারী ভাবে করোনা প্রতিরোধে সারা দেশে লগডাউন ঘোষনা দেয়ার পর জন নন্দিত পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট সুভাষ চন্দ্র শীল তার স্ত্রী সন্তানদের বরিশালের নিজ বাসায় রেখে দীর্ঘ দীন ধরে বানারীপাড়া পৌর সভার একটি কক্ষে অবস্থান করার পাশাপাশি অসহায়দের পাশে থেকে নাগরীক সেবা দিয়ে আসছিলেন।
করোনাকালিন এ সময় তিনি অসহায় পরিবারের বাড়ি গিয়ে প্রকাশ্যে ও গোপনে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার সামগ্রী এবং শিশু খাদ্যসহ ব্যক্তিগত ভাবে খাবার পৌছে দিয়ে আসছিলেন। এসময় তিনি কর্মহীন হয়ে পড়া বানারীপাড়া পৌর এলাকার কয়েক’শ রিক্সা-ভ্যান শ্রমিক, বৌ-গাড়ী, ইজিবাইক ও মাহিদ্রা-আলফা শ্রমিকসহ বন্দর বাজারের কাপড় ও বস্ত্র শ্রমিক, টেইলার কর্মী, সেলুন শ্রমিক, হোটেল-রেস্তোরা ও মুদি-মনোহারী দোকান শ্রমিক, ইলিট্রিক্যাল মেকার ও মাইক ব্যাবসায়ী, ফুটপাতের ক্ষুদ্র ব্যবসায়ী, ঋষি সম্প্রদায়, ডেকোরেটর শ্রমিক, হলুদ মরিচ, ওয়ার্কসপ, ফার্ণিচার, স্টিল ও রাইস মিল শ্রমিক, ল্যাপ-তোষক কারখানার শ্রমিক, পাদুকা সেলাই শ্রমিক, স্টুডিও ও ছবি বাধাই শ্রমিকদের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার উপহার সামগ্রী ও ব্যক্তিগত ভাবে খাবার বিতরণ করে আসছিলেন। তার চোখে বাদ পড়েনী বন্দর বাজারের পাহারাদার ও পানি শ্রমিকরাও।
দীর্ঘ দিন ধরে তিনি বানারীপাড়া পৌর সভায় অবস্থান করে এলাকাবাসীর সেবা দেয়ার পাশাপাশি সামাজিক দূরত্ব বজায় রেখে দলীয় ও প্রশাসনিক বিভিন্ন জরুরী সভায় যোগদান করে আসা পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট সুভাষ চন্দ্র শীল সোমবার সন্ধ্যায় জানান, বর্তমানে তিনি শারিরীক ভাবে সম্পূর্ণ সুস্থ হয়ে পূণরায় জনগনের মাঝে নাগরিক সেবা দেয়ার জন্য ফিরে এসেছেন। এক্ষেত্রে তিনি সকলের কাছে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করার পাশাপাশি দোয়া ও আর্শিবাদ চেয়েছেন।
তিনি জানান, ২৪ আগস্ট তিনি করোনার উপসর্গ নিয়ে নমূনা পরীক্ষার জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালে যান। এসময় তিনি সেখানের করোনা ইউনিটের সংশ্লীষ্টদের কাছে করোনা পরীক্ষার জন্য নমূনা দিয়ে আসেন। এদিন থেকে তিনি বরিশালের নিজ বাসায় আইসোলেশনে থাকেন। ২৫ আগস্ট রাতে শেবাচিম হাসপাতাল থেকে তার করোনা পরীক্ষার টেস্ট রিপোর্ট পজিটিভ আসে। এক্ষেত্রে তিনি নিয়ম অনুযায়ী ১৪ দিন ধরে বরিশালের নিজ বাসায় আইসোলেশনে থাকেন। ৬ সেপ্টেম্বর তিনি নতুন করে দ্বিতীয় টেস্টের জন্য বরিশাল শেবাচিম হাসপাতালের করোনা ইউনিটে নমূনা দিয়ে আসেন। ৮ সেপ্টেম্বর সেখান থেকে তিনি করোনা পরীক্ষার দ্বিতীয় টেস্ট রিপোর্টে নেগেটিভ হন।

করোনা জয়ী কর্মী বান্ধব পৌর মেয়র অ্যাডভোকেট সুভাষ চন্দ্র শীল ছাত্রলীগের রাজনীতি থেকে শুরু করে রাজ পথে আন্দোলন সংগ্রাম করে আসার পাশাপাশি দীর্ঘ দিন ধরে বানারীপাড়া উপজেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও সাবেক সভাপতি পদে সফল ভাবে দায়ীত্ব পালন করে আসছিলেন। পৌর মেয়র ও জেলা আওয়ামী লীগের আইন বিষয়ক সম্পাদক অ্যাডভোকেট সুভাষ চন্দ্র শীল করোনায় আক্রান্ত হওয়ার পর তার রোগমূক্তি কামনা করে পৌর শহরের বিভিন্ন মসজিদে দোয়া ও কেন্দ্রীয় সার্বজনীন দূর্গা মন্দ্রিরসহ বিভিন্ন ধর্মীয় উপসনালয়ে প্রার্থনা অনুষ্ঠিত হয়।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
Website Design and Developed By Engineer BD Network