৩০শে নভেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, মঙ্গলবার

বরিশাল মেডিকেল থেকে ৭ রোগীর দালাল আটক : কারাদন্ড

আপডেট: অক্টোবর ৫, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

বরিশাল শের-ই-বাংলা মেডিকেল কলেজ (শেবাচিম) হাসপাতাল থেকে গোয়েন্দা (ডিবি) পুলিশের হাতে আটককৃত সাত দালালকে বিভিন্ন মেয়াদে বিনাশ্রম করাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।

আজ সোমবার (০৫ অক্টোবর) দুপুরে বরিশাল জেলা প্রশাসনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মোহাম্মদ আলী সুজা ভ্রাম্যমান আদালতের মাধ্যমে ওই সাতজনকে কারাদণ্ড দিয়েছেন।

দণ্ডিতদের মধ্যে পাঁচজনকে এক মাস এবং অপর দু’জনকে সাত দিন করে বিনাশ্রম করাদণ্ড দিয়ে পুলিশের মাধ্যমে বরিশাল কেন্দ্রীয় কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

এক মাসের দণ্ডপ্রাপ্ত দালালরা হলেন- ঝালকাঠীর রাজাপুর উপজেলার মিরাজ হাওলাদারের স্ত্রী আসমা (৩২), সদর উপজেলার হিজলতলা এলাকার মোসলেম হাওলাদারে মেয়ে তানজিলা (২০), বরগুনার ইসলামপুর গ্রামের মহব্বত আলী’র ছেলে বাবুল (৪৫), নগরীর আমতলা এলাকার মৃতঃ নূরুল হক’র ছেলে সালাউদ্দীন নাদিম (৪০) ও তাজকাঠি এলাকার জয়নাল আবেদীনের ছেলে মনিরুল ইসলাম (৩০)।

এছাড়া ঝালকাঠী জেলার বিশাইন খান গ্রামের মিরাজুল ইসলামের স্ত্রী সনিয়া (২৪) ও একই জেলার সিদ্ধকাঠী গ্রামের ইয়াকুব আলীর ছেলে জহিরুল হক খান (৩৬) কে ৭দিন করে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে।

নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট মোহাম্মদ আলী সুজা জানান, ‘গ্রাম থেকে আসা নিরীহ মানুষদের শেবাচিম হাসপাতাল থেকে ভুলিয়েভালিয়ে বিভিন্ন ডায়াগনস্টিক সেন্টারে নিয়ে যায় দালালরা। বিনিময় ওইসব ডায়াগনস্টিক সেন্টার থেকে কমিশন পেয়ে থাকেন তারা।

এদের বিরুদ্ধে জেলা প্রশাসন এবং আইন-শৃঙ্খলা বাহিনীর অভিযান অব্যাহত রয়েছে। ইতিপূর্বে আরও বেশ কয়েকজন দালালকে একইভাবে অভিযান চালিয়ে আটকের পরে কারাদণ্ড প্রদান করা হয়েছে। জনস্বার্থে এ ধরনের অভিযান অব্যাহত থাকবে বলে জানান তিনি।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
   
Website Design and Developed By Engineer BD Network