২৮শে জানুয়ারি, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, বৃহস্পতিবার

 

লাভ জিহাদ আইনে প্রথম তরুণী গ্রেফতার

আপডেট: ডিসেম্বর ১৫, ২০২০

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

ভারতে লাভ জিহাদ আইনে প্রথম এক তরুণীকে গ্রেফতার করা হয়েছে। পুলিশ হেফাজতে থাকা অবস্থাতেই তার গর্ভপাত ঘটেছে বলে ওই নারীর পরিবারের সদস্যরা রোববার দাবি করেছেন। এ খবর জানিয়েছে ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম দ্য সানডে টেলিগ্রাফ।

গ্রেফতার তরুণীর নাম মুসকান জাহান। তিনি উত্তর প্রদেশের মুরাদাবাদ শহরে তার স্বামীর পরিবারের সঙ্গে থাকতেন। সেখান থেকেই ওই তরুণী ও তার স্বামী রশিদকে গ্রেফতার করে পুলিশ। গ্রেফতারের পর থেকে তরুণীর স্বামীকে অজ্ঞাত স্থানে রাখা হয়েছে বলে অভিযোগ করা হয়েছে।

মুসকানকে ধর্মান্তরিত করে বিয়ে করার অপরাধে তাকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

মুসকান শনিবার তার শ্বাশুড়িকে টেলিফোনে জানিয়েছেন, তার রক্তপাত হয়েছে এবং তিনি সন্তানকে হারিয়েছেন।

মুসকানের শ্বাশুড়ি দাবি করেছেন, তার বিশ্বাস তিন মাসের গর্ভবতী পুত্রবধূর গর্ভপাত ঘটাতে আটককেন্দ্রের কর্মীরা ইনজেকশন দিয়েছে। কারণ সে হিন্দু থেকে ধর্মান্তরিত হয়ে একজন মুসলমানকে বিয়ে করেছে।

তিনি বলেন, ‘এই পৃথিবীকে দেখার আগেই নিষ্ঠুর পৃথিবী এই শিশুটিকে বিদায় করে দিয়েছে।’

এদিকে বিয়ের পরে নারীদের ধর্ম পরিবর্তন করতে বাধ্য করার অভিযোগে ‘লাভ জিহাদ’ আইনে ১০ ব্যক্তিকে গ্রেফতার করেছে উত্তরপ্রদেশ পুলিশ।

গত মাসে ভারতের প্রথম রাজ্য হিসেবে উত্তরপ্রদেশ বাধ্য বা প্রতারণার মাধ্যমে ধর্মান্তরের বিরুদ্ধে আইন পাস করে। কাউকে ধর্মান্তকরণ করতে বাধ্য করা কিংবা বিয়ের মাধ্যমে ধর্মান্তরিত হতে প্ররোচিত করলে ১০ বছর পর্যন্ত কারাদণ্ডের বিধানও আছে। সমালোচকরা বলছেন, এটা বিজেপি সরকারের মুসলিমবিরোধী এজেন্ডা।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
 
Website Design and Developed By Engineer BD Network