১২ই সেপ্টেম্বর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ, রবিবার

মির্জাগঞ্জে স্কুল-কলেজগুলোতে শিক্ষার্থীদের মাঝে উৎসবের আমেজ

আপডেট: সেপ্টেম্বর ১২, ২০২১

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন

মির্জাগঞ্জ (পটুয়াখালী) প্রতিনিধিঃ মহামারি করোনাভাইরাসের সংক্রমণ কিছুটা কমায় প্রায় দেড় বছর পর আজ রোববার সারাদেশের শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খুলে দেওয়া হয়েছে। তারই ধারাবাহিকতায় পটুয়াখালীর মির্জাগঞ্জে এদিন সকাল থেকে প্রাথমিক, মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক, মাদ্রাসা ও কলেজ পর্যায়ের শিক্ষার্থীদের শ্রেণিকক্ষে সশরীরে পাঠদান শুরু হয়েছে। শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান খোলায় শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও অভিভাবকদের মধ্যে ব্যাপক উৎসাহ-উদ্দীপনা বিরাজ করছে। তবে একই সঙ্গে করোনার সংক্রমণ ফের বাড়ার শঙ্কায় তাদের মধ্যে উদ্বেগ-উৎকণ্ঠাও রয়েছে।

রবিবার (১২ সেপ্টেম্বর) সকালে উপজেলা কয়েকটি শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ঘুরে দেখা যায়, স্কুল-কলেজ গুলোর ফটকে শিক্ষার্থীদের তাপমাত্রা মেপে প্রবেশ করানো হচ্ছে। তাদেরকে হ্যান্ড স্যানিটাইজার ব্যবহার ও সামাজিক দূরত্ব বজায় রাখার নির্দেশনা দেওয়া হচ্ছে। ফটকে স্কুলের কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে শিক্ষকদেরও অবস্থান করতে দেখা গেছে। বিভিন্ন স্কুল-কলেজে শিক্ষার্থীদের বরণ করে নেওয়ার আয়োজন করা হয়েছে। উৎসাহ ও উদ্দীপনা নিয়ে শিক্ষার্থীরা শ্রেণিকক্ষে প্রবেশ করছে। তাদের পরনে সেই চিরচেনা স্কুল ড্রেস, কাঁধে বইয়ের ব্যাগ। তবে করোনার স্বাস্থ্যবিধি মেনে অনেকের মুখে মাস্ক আবার অনেককে মাস্ক ছাড়াও দেখা গেছে। শিক্ষকদের নির্দেশনা মেনে ছাত্রছাত্রীরা দূরত্ব বজায় রেখে স্কুলে প্রবেশ করছে।

অন্যদিকে সরকারি স্বাস্থ্যবিধি মেনে শিক্ষাকার্যক্রম পরিচালনা করা হচ্ছে কি-না, তা পরিদর্শন করতে উপজেলা প্রাথমিক ও মাধ্যমিক শিক্ষা অফিস থেকে টিম গঠন করা হয়েছে। তারা বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে সরেজমিনে গিয়ে পরিদর্শন করছেন।

উপজেলা সদরের সুবিদখালী সরকারি রহমান ইসহাক পাইলট মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের এসএসসি পরিক্ষার্থী মোঃ মিনহাজুল ইসলাম বলেন, কোভিড১৯ এর কারনে আমাদের জীবনের গুরুত্বপূর্ণ দেড়টি বছর হারিয়েছি। আজ ক্লাস করতে পরে আনন্দ লাগছে। আর কিছুদিন পরেই আমাদের পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। তাই আমরা চাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে প্রতিদিন আমাদের ক্লাস নেয়া হোক।
ওই বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল জলিল বলেন, দীর্ঘদিন পর বিদ্যালয় খোলায় আমরা শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী সকলেই আনন্দিত। আমরা সরকারের সকল নির্দেশনা, বিধি মেনে শিক্ষার্থীদের প্রথম দিনের ক্লাস কার্যক্রম শুরু করেছি। এতে বিদ্যালয় শিক্ষার্থীদের মাঝে বেশ আনন্দঘন পরিবেশ ছিল। শিক্ষার্থীদের উপস্থিতিও সন্তোষজনক।

  • ফেইসবুক শেয়ার করুন
   
Website Design and Developed By Engineer BD Network